পুলিশ সার্জেন্টের বিরুদ্ধে সরকারি প্রকল্পের কাজে বাঁধা দেয়ার অভিযোগ

Date:

Share post:

মো. সাকের খান (মদন) : নেত্রকোনা মদন উপজেলায় সরকারি প্রকল্পের কাজে বাঁধা দেওয়ার লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে সোহাগ আহম্মেদ রকি নামের এক পুলিশ সার্জেন্টের বিরুদ্ধে। রাস্তাটি না হওয়ায় দুই গ্রামের লোকজনের যাতায়াতের দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। দুই মাসেও প্রকল্পের কাজ বাস্তবায়ন না হওয়ায় এলাকাবাসী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরবার একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। কাজ না করলেও বরাদ্দকৃত অর্থ উত্তোলণ করেছেন প্রকল্পের পিআইসি কমিটি।

জানা যায়, ২০২০-২১ অর্থবছরে গ্রামীণ অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ (টি আর) কর্মসূচির আওতায় উপজেলার কাইটাইল ইউনিয়নের জয়পাশা গ্রামের রাস্তা নির্মাণের প্রকল্প দেওয়া হয়। হাজরাগাতী ও জয়পাশা গ্রামের লোকজনের যাতায়াতের সুবিধার্থে জয়পাশা গ্রামের জাহাঙ্গীরের বাড়ি হইতে বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কদ্দুছের বাড়ি পর্যন্ত রাস্তা নির্মাণে বরাদ্দের ৭৬ হাজার টাকা উত্তোলন করেন পিআইসি কমিটি। কিন্তু রাস্তা নির্মাণ কাজ শুরু করতে চাইলে জয়পাশা গ্রামের মৃত খোরশেদ মিয়ার ছেলে পুলিশের সার্জেন্ট (বর্তমানে ঢাকা উত্তরায় কর্মরত) সোহাগ আমম্মেদ রকি তার লোকজন নিয়ে বাধা প্রদান করেন। প্রকল্পের কাজ বন্ধ করায় এলাকাবাসী কয়েক দফা শালিসী বৈঠক করে কোনো সুরাহা করতে পারেনি। গ্রামবাসী (২৭ জুন) রবিবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

সংশ্লিষ্ট ইউপি সদস্য মোঃ মোজাম্মেল হক বলেন, হাজরাগাতী ও জয়পাশা এই দুই গ্রামের লোকজনের যাতায়াতের জন্য এই রাস্তাটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই রাস্তার জন্য সরকারি বরাদ্দ দেয়া হয়। কিন্তু পুলিশ সার্জেন্ট সোহাগ আহম্মেদ রকি তার জমি দিয়ে রাস্তা দিবেন না বলে লোকজন নিয়ে বাধা দেয়। এ নিয়ে গ্রামবাসী একাধিক শালিস বৈঠক করে সার্ভেয়ার এনে মেপে জয়পাশা মৌজার ৩৩৪৮ নং দাগের সরকারি হালট দিয়ে রাস্তা করার সিন্ধান্ত করেন। ওই জায়গাও নিজেদের দাবি করে বেড়া দিয়ে রাস্তা নির্মাণের কাজ বন্ধ করে দেয় সোহাগ। পরে গ্রামের লোকজন লিখিত অভিযোগ করেছেন।

এ ব্যাপারে প্রকল্পের পিআইসি কমিটির সভাপতি সংরক্ষিত ইউপি সদস্য হেনা আক্তার জানান, কাজে বাঁধা দেওয়ায় রাস্তায় মাটি কাটানো সম্ভব হয়নি। প্রকল্পটি বাতিলের জন্য ইউএনও স্যারের বরাবরে আবেদন করেছিলাম। তবে প্রকল্পের বিল বাবদ কোনো টাকা আমি উত্তোলণ করিনি।

ইউপি চেয়ারম্যান সাফায়াত উল্লাহ রয়েল জানান, স্থানীয় কয়েকজন প্রকল্পের কাজে বাঁধা দেওয়ায় কাজ করা সম্ভব হয়নি। তবে প্রকল্পের বরাদ্দকৃত টাকা আমার কাছে জমা রয়েছে। প্রকল্পটি পরিবর্তন করতে পিআইও অফিসে আবেদন করেছি।

ঢাকা উত্তরায় কর্মরত পুলিশের সার্জেন্ট সোহাগ আহম্মেদ রকি জানান, আমার বাড়ির দুই দিক দিয়ে রাস্তা রয়েছে। এখন আমার জমি দিয়ে পুণরায় রাস্তা করতে চাইছে। তাই আমি নিষেধ করেছি। এলাকার লোকজনের অভিযোগ তারা সরকারি হালট দিয়ে রাস্তা করতে চাইছে এবং আপনি সরকারি জায়গা নিজের দাবি করে বেড়া দিয়েছেন এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সরকারি হালটে রাস্তা করতে চাইলে আমি কোনো বাধা দিবো না।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা শওকত জামিল জানান, টিআর প্রকল্পের কাজে বাধা দেওয়ায় কাজ করা সম্ভব হয়নি। বরাদ্দের টাকা সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে জমা রয়েছে। কাজ না করলে টাকা ফেরত দিতে হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ বলেন, এ ব্যাপারে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। আমি আজকেই (২৯ জুন মঙ্গলবার) ওই এলাকায় গিয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

spot_img

Related articles

ভালুকায় কাভার্ডভ্যান উল্টে ২জন নিহত

কাভার্ড ভ্যান উল্টে নিহত, ভালুকা, ময়মনসিংহ

ভালুকায় পিকাপ গাড়ীসহ চোর চক্রের ৫ সদস্য আটক 

আফরোজা আক্তার জবা, ভালুকা প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের ভালুকায় ২টি চোরাই পিকাপ গাড়ীসহ চক্রের ৫ সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ।...

ভালুকায় ধান ক্ষেত থেকে গৃহবধূর গলাকাটা লাশ উদ্ধার

আফরোজা আক্তার জবা ভালুকা প্রতিনিধিঃময়মনসিংহের ভালুকায় হাজেরা খাতুন(৩৫) নামে এক গৃহবধূর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে ভালুকা মডেল থানা...

ভালুকায় পথচারীদের মাঝে পানি ও স্যালাইন বিতরণ

আফরোজা আক্তার জবা, ভালুকা প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহের ভালুকায় প্রচন্ড তাপদাহে মানুষের তৃষ্ণা মেটাতে পথচারীদের মাঝে বিশুদ্ধ পানি ও খাবার...