মদনে প্রভাবশালীদের দখলে ফতেপুর হাট সিরা বাজার

Date:

Share post:

মো. সাকের খান (মদন থেকে) : নেত্রকোনা মদন উপজেলার ফতেপুর হাট সিরা বাজারে সরকারি জমি দখলের মহোৎসব চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এলাকার প্রভাবশালী ব্যক্তিরা দীর্ঘদিন ধরে ওই বাজারে তিন একর তিন শতক জমি দখল করে পাকা অর্ধ পাকা ঘর নির্মাণ করে জমজমাট ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে। আবার অনেকে ঘর নির্মাণ করে অন্যত্র বিক্রি করে দিয়েছে।

এই বাজারে খুচরা ব্যবসা করার জন্য সরকার গ্লোথ সেন্টারের আওতায় লক্ষাধিক টাকা বেয়ে খোলা সেট নির্মাণ করে দেয়।কিন্তু সরকারি জায়গা দখলের পর এখন খোলা সেটে স্থায়ীভাবে ঘর নির্মাণের হিড়িক পড়েছে। ৬টি খোলা সেটে ২৫ টি স্থায়ী ঘর নির্মাণ করে জমজমাট ব্যবসা করে এলাকার একটি প্রভাবশালী চক্র। প্রশাসন এ ব্যাপারে নিরব ভূমিকা পালন করায় প্রভাবশালী চক্রটির অবৈধ কার্যক্রম দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এ বাজারে সরকারি জমিতে পাকা অর্ধ পাকা শতাধিক দোকান ঘর রয়েছে এরমধ্যে মন্টু তালুকদার আব্দুল জব্বার মিলন চৌধুরী মিশন চৌধুরী সহ অনেকেই ঘর বিক্রি করে দিয়েছে। অপরদিকে মহসিন মিয়া দুলাল চৌধুরী হাজি রহমান তালুকদার তাজুল ইসলাম তালুকদার কাঞ্চন নাভেদ মুখলেস চৌধুরী মাহবুব তালুকদার সোলেমান আব্দুল কাদির মিয়া রহিস মিয়া তাজুল মাস্টার শহ অনেকেই পাকা অর্ধ পাকা ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা করছেন। ওই বাজারে একটি মাত্র পাবলিক টয়লেট সেটিও দখল করে অর্ধ পাকা ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা করছে এলাকার প্রভাবশালী আব্দুল কাদের। এটি যেন দেখার কেউ নেই। শনিবার ফতেপুর হাট সিরা বাজারে সরেজমিনে গেলে এ দৃশ্য চোখে পড়ে ।

খোলা শেডে স্থায়ীভাবে ঘর নির্মাণকারী এসব ব্যক্তিরা জানান খোলা শেডে যে যার মতো করে ঘর তৈরি করছে তাই আমরাও ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা করছি। আমাদেরকে এখন পর্যন্ত কেউ নিষেধ করেননি।

বাজারে আসা দেও শহিলা গ্রামের মনোয়ার, ফতেপুর গ্রামের লাল মিয়া, লাছার কান্দা গ্রামের সুমন মিয়া, রুদ্র শ্রী গ্রামের তারা মিয়া জানান, অনেক পুরনো এ বাজারটি প্রশাসনের নজরদারি না থাকায় যে যার মতো করে নায়েবকে ম্যানেজ করে সরকারি জায়গা দখল করে নিচ্ছে । আমরা এখন বাজারে এসে ঠিক মতন দাঁড়ানোর মত জায়গা নেই।

এ ব্যাপারে ফতেপুর হাটশিরা বাজার কমিটির সভাপতি ফরিদ চৌধুরী জানান, প্রশাসনকে সরকারি জায়গা দখলের বিষয়টি একাধিকবার জানানোর পরেও কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছে না। তবে বর্তমানে এ বাজারে শতাধিক ঘর অবৈধভাবে দখল করে নিয়েছে প্রভাবশালীরা বাজারের একটি মাত্র পাবলিক টয়লেট শেডটিও দখল করে দোকান নির্মাণ করেছে। দূর-দূরান্ত থেকে আসা বাজারের লোকজন প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিলে টয়লেট ব্যবহার করতে না পেরে ভোগান্তিতে পড়ছেন।

ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম চৌধুরী সরকারি জায়গা দখলের বিষয়টি সত্যতা স্বীকার করে বলেন, অচিরেই অবৈধ দখলকারীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য আমি ইউএনও মহোদয়কে জানাবো।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. বুলবুল আহমেদ বলেন, আমরা ইতিমধ্যে উপজেলার মদন বাজার এবং কাইটাইল বাজার অবৈধ দখলদারদের বিরুদ্ধে উচ্ছেদ অভিযান চলছে। উপজেলার অন্যসব বাজারে অবৈধ দখলদারদের বিরুদ্ধে অচিরেই উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হবে বলে তিনি জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

spot_img

Related articles

ভালুকায় কাভার্ডভ্যান উল্টে ২জন নিহত

কাভার্ড ভ্যান উল্টে নিহত, ভালুকা, ময়মনসিংহ

ভালুকায় পিকাপ গাড়ীসহ চোর চক্রের ৫ সদস্য আটক 

আফরোজা আক্তার জবা, ভালুকা প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের ভালুকায় ২টি চোরাই পিকাপ গাড়ীসহ চক্রের ৫ সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ।...

ভালুকায় ধান ক্ষেত থেকে গৃহবধূর গলাকাটা লাশ উদ্ধার

আফরোজা আক্তার জবা ভালুকা প্রতিনিধিঃময়মনসিংহের ভালুকায় হাজেরা খাতুন(৩৫) নামে এক গৃহবধূর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে ভালুকা মডেল থানা...

ভালুকায় পথচারীদের মাঝে পানি ও স্যালাইন বিতরণ

আফরোজা আক্তার জবা, ভালুকা প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহের ভালুকায় প্রচন্ড তাপদাহে মানুষের তৃষ্ণা মেটাতে পথচারীদের মাঝে বিশুদ্ধ পানি ও খাবার...